মঙ্গলবার, ২২শে সেপ্টেম্বর, ২০২০ ইং, সকাল ৭:৫৪
শিরোনাম :
আল্লামা শফীকে নিয়ে কটূক্তি, রিমান্ডে আলাউদ্দিন জিহাদী কুয়াকাটায় আবাসিক হোটেল থেকে ট্রলার মালিকের লাশ উদ্ধার বরিশাল কেমিস্ট ল্যাবরেটরিজের তিন কর্মকর্তার বিরুদ্ধে মামলা মঠবাড়িয়ায় ফুসকা খাওয়ানো কথা বলে দুই কলেজছাত্রীকে ধর্ষণ! গৌরনদীতে ইউনিয়ন পরিষদ পরিদর্শনে ডিডিএলজি বরিশালে সিআইডির ডিআইজিকে ডিসি খাইরুল আলমের ফুলেল শুভেচ্ছা আমরা সৎভাবে স্বাধীনভাবে জনগনের সেবা করতে চাই: ডিসি খাইরুল আলম নামাজে সব মুসল্লির মাস্ক পরা নিশ্চিতের আহ্বান প্রধানমন্ত্রীর অধিদফতরের গাড়িচালক মালেক ১৪ দিনের রিমান্ডে প্রধানমন্ত্রীর কাছে নারায়নগঞ্জে মসজিদে হতাহতদের পরিবারের ৬ দফা দাবি

সাইক্লোন পরবর্তী মোবাইল সেবা পুনরুদ্ধারে সরকারের সহযোগিতা চেয়েছে এমটব

ডেক্সরিপোর্ট  সুপার সাইক্লোন আম্ফানের পর সেবা পুনরুদ্ধারে সরকারের সহযোগিতা চেয়েছে মোবাইল ফোন অপারেটরদের সংগঠন অ্যাসোসিয়েশন অব মোবাইল টেলিকমিউনিকেশন অপারেটরস অব বাংলাদেশ (এমটব)।

বুধবার (২০ মে) গণমাধ্যমে পাঠানো এক বিজ্ঞপ্তিতে এমটব মহাসচিব ব্রিগেডিয়ার জেনারেল এস এম ফরহাদ (অবঃ) বলেন, মোবাইল সেবাদাতা ও তাদের সহযোগী প্রতিষ্ঠানের কর্মীরা কোভিড-১৯ সংকটের সময়ে বাংলাদেশের নাগরিকদের জরুরী টেলিকম সেবা নিশ্চিত করতে কঠোর পরিশ্রম করে যাচ্ছেন। এর মধ্যে শক্তিশালী ঘূর্ণিঝড় আম্পান আঘাতের পরেও উপকূল এলাকাগুলোতে যেন অত্যাবশ্যকীয় মোবাইল সেবা যেন চালু থাকে বা স্বল্প সময়ের মধ্যেই পুনরায় তা চালু করা যায় সেজন্য সজাগ ও সতর্ক থেকে প্রয়োজনীয় প্রস্তুতি নেওয়া হচ্ছে।

তবে টেলিযোগাযোগকে জরুরি সেবা বিবেচনা করে সাইক্লোনের সময় ও পরে পুনরায় সেবা চালু করতে সরকারের বিভিন্ন কর্তৃপক্ষের সঙ্গে সমন্বয় দরকার; বিশেষ করে বিদ্যুৎ কর্তৃপক্ষের বিশেষ সহযোগিতা প্রয়োজন। তদুপরি, এই সময়ে জরুরি প্রয়োজনে সেবা পুনরুদ্ধারে চলাচলের জন্য আইন প্রয়োগকারী সংস্থার সহায়তা প্রয়োজন। এই সময় জরুরি প্রয়োজনে সেবা পুনরুদ্ধারে চলাচলের জন্য আইন প্রয়োগকারী সংস্থার সহায়তা প্রয়োজন এবং নাগরিকদের নিরবচ্ছিন্ন টেলিকম সেবা নিশ্চিত করাই মোবাইল সেবাদাতাদের উদ্দেশ্য বলে বার্তায় উল্লেখ করা হয়।

পূর্বের ঘূর্ণিঝড়গুলোতে মোবাইল অপারেটরদের টাওয়ারগুলো ক্ষতিগ্রস্ত হওয়ার অভিজ্ঞতা থেকে এমন আহ্বান জানিয়েছে এমটব।

এদিকে আবহাওয়া অধিদপ্তরের বার্তা অনুযায়ী বুধবার সন্ধ্যা নাগাদ ঘূর্ণিঝড় আম্পান বাংলাদেশ উপকূল অতিক্রম করতে পারে। এরইমধ্যে দেশের সমুদ্র বন্দরে মহাবিপদ সংকেত দেখানো হয়েছে।