বুধবার, ৩রা মার্চ, ২০২১ ইং, সকাল ৭:৩২

আইনের সাথে প্রযুক্তির সমন্বয় ঘটিয়ে সমাজে টেকসই নিরাপত্তা ব্যাবস্থা গড়ে তুলতে চাই: ডিসি খাইরুল আলম

নিজস্ব প্রতিবেদক  বরিশাল মেট্রোপলিটন পুলিশের উপ-পুলিশ কমিশনার (উত্তর) মোঃ খাইরুল আলম বলেছেন, পুলিশ সদস্যদের আইনের সাথে সাথে প্রযুক্তি সম্পর্কেও জানতে হবে।আমরা আইনের সাথে প্রযুক্তির সমন্বয় ঘটিয়ে অপরাধ নিয়ন্ত্রন করে সমাজে টেকসই নিরাপত্তা ব্যাবস্থা গড়ে তুলতে চাই।বর্তমানে আমরা মুজিব বর্ষে অবস্থান করছি।মুজিব বর্ষে আমরা জাতির পিতা বঙ্গবন্ধুর স্বপ্নের সোনার পুলিশ হতে চাই।সে লক্ষ্যে কাজ করছে পুলিশ।কোন অবস্থাতেই যেন আইন শৃংখলা পরিস্থিতির অবনতি না ঘটে সেদিকে খেয়াল রাখতে হবে।বিএমপি উত্তর বিভাগের সবাই একটি টিম।অপরাধ নিয়ন্ত্রনে এ টিম একযোগে কাজ করবে। সকল প্রকার ওয়ারেন্ট তামিল করার জন্য অভিযান আরও জোরদার করতে হবে।

সোমবার (২২ফেব্রুয়ারি ) সকাল সাড়ে ১১ টায় নথুল্লাবাদ উপ-পুলিশ কমিশনার উত্তরের কার্যালয়ে অনুষ্ঠিত বিএমপি উত্তর বিভাগের মাসিক অপরাধ পর্যালোচনা সভায় সভাপতির বক্তব্যে তিনি এসব কথা বলেন।

এ সময় তিনি আরও বলেছেন,সাদাকে সাদা আর কালোকে কালো বলতে হবে।মামলার চার্জশিটে সত্যঘটনা তুলে ধরতে হবে।সকল মামলার ম্যারিট অনুযায়ী দ্রুত নিস্পত্তি করতে হবে। দেশ আজ উন্নয়নের মহাসড়কে অবস্থান করছে।দেশের উন্নয়নের সাথে সাথে আমাদের মন মানষিকতার উন্নয়ন ঘটাতে হবে।বিট পুলিশিংয়ের মাধ্যমে সমাজের প্রান্তিক জনগোষ্ঠীর কাছে পুলিশি সেবা পৌঁছে দিতে হবে। মাননীয় প্রধানমন্ত্রীর সুযোগ্য নের্তৃত্বে দেশ আজ একটি মধ্যম আয়ের দেশে পরিনত হয়েছে।স্বাধীনতার সুবর্ন জয়ন্তীর বছরে জনতার পুলিশে রুপান্তরিত হয়ে ২০৪১ সালে একটি আধুনিক ও উন্নত বাংলাদেশ গড়তে হলে পুলিশ বাহীনিকেও প্রযুক্তি নির্ভর আধুনিক পুলিশ হিসেবে গড়ে তুলতে হবে।

এ সময় আরও উপস্থিত ছিলেন,অতিরিক্ত উপ-পুলিশ কমিশনার(উত্তর) রুনা লায়লা, এয়ারপোর্ট থানার সহকারী পুলিশ কমিশনার নাসরিন জাহান,কাউনিয়া থানার সহকারী পুলিশ কমিশনার মাসুদ রানা,কাউনিয়া থানার অফিসার ইনচার্জ মোঃ আজিমুল করিম,এয়ারপোর্ট থানার পুলিশ পরিদর্শক এস এম জাহিদ বিন আলম,এয়ারপোর্ট থানার পুলিশ পরিদর্শক তদন্ত শাহ মোঃ ফয়সাল,কাউনিয়া থানার পুলিশ পরিদর্শক (অপারেশন)মোঃ লোকমান হোসেন সহ অন্যান্য পুলিশ সদস্যরা।