বুধবার, ৩০শে নভেম্বর, ২০২১ ইং, ভোর ৫:৪৯
শিরোনাম :
করোনায় ২৬নং ওয়ার্ডের চার মৃত ব্যাক্তির স্বরনে মহানগর মুছলিহীন ক‌মি‌টির উদ্যোগে দোয়া অনুষ্ঠিত ভোলায় জমির বিরোধকে কেন্দ্র করে প্রতিপক্ষের হামলায় নিহত ১ ‘বাংলাদেশ-ভারতের সম্পর্ক নতুন মাত্রায়’ ঘণ্টায় ১১৭ কিলোমিটার বেগে আঘাত হানতে পারে ‘শক্তিশালী জাওয়াদ’ শিক্ষার্থীকে চাপা দেওয়া বাসচালকের সহকারী গ্রেফতার মাদ্রাসাছাত্রীকে ডেকে নিয়ে ধর্ষণে শিক্ষকের যাবজ্জীবন কারাদণ্ড গরুকে বিয়ে করে ঘুমের জন্য নরম বালিশ-বিছানার ব্যবস্থাও করেছেন তিনি বাসে শিক্ষার্থীদের হাফ ভাড়া কার্যকর অনলাইন চিত্রাঙ্কন প্রতিযোগিতায় বরিশাল বিভাগে প্রথম মোস্তফা দেশে ২২৭ জনের করোনা শনাক্ত, মৃত্যু দুই

চলন্ত ট্রেনে পাথর নিক্ষেপ, চোখ খুলতে পারছেন না ব্যবসায়ী

ডেস্করিপোর্ট  রাজবাড়ীতে চলন্ত ট্রেনে দুর্বৃত্তদের ছোড়া পাথরে কৃষ্ণ কর্মকার (৩০) নামে এক স্বর্ণ ব্যবসায়ী আহত হয়েছেন। শুক্রবার দুপুরের দিকে গোয়ালন্দ বাজার স্টেশন ও রাজবাড়ীর পাঁচুরিয়া স্টেশনের মাঝামাঝি স্থানে এ ঘটনা ঘটে।

আহত কৃষ্ণ কর্মকার মেহেরপুর জেলার আমঝুপি গ্রামের মৃত্যুঞ্জয় কর্মকারের ছেলে। পেশায় তিনি স্বর্ণ ব্যবসায়ী।

এই ভুক্তভোগী জানান, ব্যবসায়িক কাজ শেষে ঢাকা থেকে তিনি বাড়ি ফিরছিলেন। দৌলতদিয়া ঘাট থেকে খুলনাগামী মেইল ট্রেনে ওঠেন। ট্রেনের গেটের পাশে তার এক বন্ধুর সঙ্গে বসে গল্প করছিলেন।

ট্রেনটি গোয়ালন্দ বাজার স্টেশন পার হওয়ার পর রাজবাড়ীর পাঁচুরিয়া পৌঁছার একটু আগে দুর্বৃত্তরা চলন্ত ট্রেনের গেটে পাথর নিক্ষেপ করলে পাথরটি তার চোখে এসে লাগে। এতে তিনি মারাত্মকভাবে আহত হন। তার চোখ দিয়ে রক্ত বের হতে থাকে।

পরে ট্রেনটি রাজবাড়ী স্টেশনে পৌঁছলে তিনি দ্রুত চিকিৎসা নেওয়ার জন্য রাজবাড়ী সদর হাসপাতালে চলে যান। হাসপাতাল থেকে চিকিৎসা শেষে এসে তিনি বিষয়টি রাজবাড়ী রেলওয়ে স্টেশন মাস্টার ও জিআরপি থানাকে অবগত করেন।

কৃষ্ণ কর্মকার বলেন, আমার চোখে প্রচণ্ড ব্যথা পেয়েছি, এখনো চোখ অনেক জ্বালাপোড়া করছে। বর্তমানে চোখে অনেকটা ঝাপসা দেখছি। চোখ খুলতেই পারছি না কিছুতে। অনেক কষ্ট হচ্ছে আমার। ডাক্তার তাকে চশমা পরতে বলেছেন বলে জানান তিনি।

এ বিষয়ে রাজবাড়ী রেলওয়ের স্টেশন মাস্টার তন্ময় কুমার বিশ্বাস বলেন, বিষয়টি আমি শুনে জিআরপি থানার ওসিকে ঘটনা জানাতে বলেছি। তবে রাজবাড়ীতে এর আগে কখনো দুর্বৃত্তরা চলন্ত ট্রেনে পাথর নিক্ষেপ করেনি বলে জানান এই কর্মকর্তা।