শুক্রবার, ৪ঠা ডিসেম্বর, ২০২০ ইং, দুপুর ২:০৯
শিরোনাম :
করোনার দ্বিতীয় ঢেউ মোকাবেলায় জনগণকে স্বাস্থ্যবিধি মেনে চলার জন্য সচেতন করতে হবে : বিএমপি কমিশনার বরিশাল জেলা ছাত্রদল সভাপতি মিঠু বহিষ্কার যুক্তরাষ্ট্রের সাবেক তিন প্রেসিডেন্টের প্রকাশ্যে টিকা নেয়ার ঘোষণা যুক্তরাষ্ট্রে একদিনে লক্ষাধিক করোনা রোগী হাসপাতালে ভর্তি একাত্তরের ঘটনা ভুলে যাওয়া বা ক্ষমা করা যায় না: প্রধানমন্ত্রী ইরানের সঙ্গে চুক্তিতে ফিরতে চান বাইডেন! বরিশালে এডিসি জাকারিয়া রহমান জিকুর বদলী জনিত বিদায় সংবর্ধনা অনুষ্ঠিত নাগর্নো-কারাবাখ সংঘর্ষে আজারবাইজানের প্রায় ৩ হাজার সেনা নিহত গোল্ডেন মনিরের বিরুদ্ধে চার্জশিট অনুমোদন দেশের প্রয়োজনে সর্বোচ্চ ত্যাগ স্বীকারে প্রস্তুত সেনাবাহিনী : সেনাপ্রধান

তরুণ সাংবদিক শাখাওয়াতের শুভ জন্মদিন আজ

ফয়ছাল আহম্মেদ, স্টাফ রিপোর্টার: কোনো জনপদের চিন্তাধারার প্রতিনিধি, কণ্ঠস্বর, বিবেকের অনুশাসন হিসেবে কবি, শিল্পী, সাহিত্যিক, সাংবাদিক সৃজনশীল প্রতিটি মানুষই ভূমিকা রাখেন। তেমনি একজন তরুন সাংবাদিক, সময়ের সাহসী তরুন সাংবাদিক শাখাওয়াত হোসেন। তার জন্মদিন আজ।

যেখানে অন্যায় অত্যাচার, অপরাধ, দুর্নীতি, দুঃশাসন সেখানেই নির্ভীক, সাহসী, এক সাংবাদিকের পদচারণ। যে কোন মূল্যেই তিনি তুলে নিয়ে আসবেন ঘটনার অন্তরালের মূল ঘটনা। অপরাধ ও অপরাধী যত গভীরেই থাকুক না কেন সেখান থেকেই তিনি তার চতুরতা, একনিষ্ঠ কর্মদক্ষতা দিয়ে টেনে বের করেন লুকানো সেইসব অপরাধীদের। তাদের মন্দ কাজের সকল আমলনামা। তুলে ধরেন দেশ ও জাতীর সম্মুখে। যিনি সত্যর সন্ধানে রত নির্ভীক সাংবাদিক, জীবনে সুখ বিলাস লোভে মোহ ত্যাগের প্রতীক। সহজ সরল জীবন ও অন্যায়ের বিরুদ্ধে জিহাদি। অপরাধ মুক্ত সমাজ প্রতিষ্ঠার অপ্রতিদন্ধি। অন্যায়ের সাথে কখনোই আপোষ করে না যিনি তিনি আর কেউ নয়। তিনি এ সময়ের প্রিয় প্রতিবাদী কবি ও ক্রাইম রিপোর্টার সকলের প্রিয় ব্যক্তি।

আজকের আকাশে অনেক তারা, দিন ছিল সূর্যে ভরা। আজকের জোসনাটা আরও সুন্দর,সন্ধ্যাটা আগুন লাগা। আজকের পৃথিবী তোমার জন্য, ভরে থাকা ভাল লাগা। মুখরিত হবে দিন গানে গানে, আগামীর সম্ভাবনা। আপনি এই দিনে পৃথিবীতে এসেছন তাই শুভেচ্ছা আপনাকে, তাই অনাগত খন হোক আরও সুন্দর উজ্জ্বল দিন কামনায়।

ছাত্রজীবন থেকেই বিভিন্ন পত্রিকায় লেখা লেখির সাথে সম্পৃক্ত ছিলেন তিনি। আর সেই থেকেই সাংবাদিকতার হাতেখড়ি পেয়েছিলেন। সাংবাদিকতার মত মহান পেষা ছেড়ে অন্য কিছুই চিন্তা বা ভাবনা ভাবতে চান না।

তার নর্মতা, বাচন ভঙ্গি, শুদ্ধ উচ্চারণ, উত্তম চারিত্রিক গুণাবলী, ভদ্র, প্রাণবন্ত ও ব্যক্তিত্ব সম্পন্ন একজন মানুষ। সবচেয়ে বড় বৈশিষ্ট্য হল তার সৃষ্টিশীলতা বা সঞ্জননই ক্ষমতা, যা হল মৌলিক ভাষিক এককগুলিকে সংযুক্ত করে অসীম সংখ্যক বৈধ বাক্য সৃষ্টির ক্ষমতা, যে বাক্য গুলির অনেক গুলিই হয়ত আজও কেউ বলেনি বা শোনেনি। প্রকাশভঙ্গী নম্র ও কোমল আচরণের মানুষকে সবাই ভালোবাসে, সমীহ করে আর তাই তিনি সকলের কাছে সমান সমাদৃত। কোমল আচরণের দ্বারা মানুষের চারিত্রিক মাধুর্যটা প্রকাশ পায়। পেশাগত দায়িত্ব পালনের পাশাপাশি ভোজন রসিক এ সাংবাদিক পরিবারের সঙ্গে সময় কাটাতে বেশ পছন্দ করেন।

ব্যক্তিগত জীবনে তিনি অবিবাহিত । সবসময় ইতিবাচক মানসিকতা পোষণ করেন এই সাংবাদিক-গবেষক। অল্প বয়সে এতো এতো সাফল্যের পেছনের সূত্র মনে করেন ‘ইতিবাচক থাকা’কে। দেশকে নিয়ে প্রচন্ড আশাবাদী তিনি। সমৃদ্ধ এবং উন্নত এক দুর্নীতিমুক্ত বাংলাদেশের স্বপ্ন দেখেন তিনি।