বুধবার, ১লা ডিসেম্বর, ২০২১ ইং, সকাল ৭:০২
শিরোনাম :
করোনায় ২৬নং ওয়ার্ডের চার মৃত ব্যাক্তির স্বরনে মহানগর মুছলিহীন ক‌মি‌টির উদ্যোগে দোয়া অনুষ্ঠিত ভোলায় জমির বিরোধকে কেন্দ্র করে প্রতিপক্ষের হামলায় নিহত ১ ‘বাংলাদেশ-ভারতের সম্পর্ক নতুন মাত্রায়’ ঘণ্টায় ১১৭ কিলোমিটার বেগে আঘাত হানতে পারে ‘শক্তিশালী জাওয়াদ’ শিক্ষার্থীকে চাপা দেওয়া বাসচালকের সহকারী গ্রেফতার মাদ্রাসাছাত্রীকে ডেকে নিয়ে ধর্ষণে শিক্ষকের যাবজ্জীবন কারাদণ্ড গরুকে বিয়ে করে ঘুমের জন্য নরম বালিশ-বিছানার ব্যবস্থাও করেছেন তিনি বাসে শিক্ষার্থীদের হাফ ভাড়া কার্যকর অনলাইন চিত্রাঙ্কন প্রতিযোগিতায় বরিশাল বিভাগে প্রথম মোস্তফা দেশে ২২৭ জনের করোনা শনাক্ত, মৃত্যু দুই

রাজারহাটে ত্রাণ প্রতিমন্ত্রীর ত্রাণ বিতরণও বন্যায় ক্ষতিগ্রস্ত এলাকা পরিদর্শন

মাসুদ রানা রাজারহাট কুড়িগ্রাম প্রতিনিধি  উজান থেকে নেমে আসা পাহাড়ি ঢলে সকাল থেকে তিস্তা নদীর পানি অস্বাভাবিক ভাবে বাড়তে শুরু করে।ফলে মহুর্তেই কুড়িগ্রাম জেলার রাজারহাট উপজেলার নিম্নাঞ্চলে পানি ঢুকে পড়ে যার কারণে তিস্তা নদীর তীরবর্তী কয়েক হাজার মানুষ পানিবন্দী হয়ে পড়ে।গত ২১ শে অক্টোবর কুড়িগ্রাম জেলা প্রশাসক মোহাম্মদ রেজাউল করিম বন্যাকবলিত এলাকা পরিদর্শনে আসেন।বন্যাকবলিত এলাকার মানুষের কষ্ট দেখে সরকারের দায়িত্বশীল ত্রাণ ও দুর্যোগ মন্ত্রণালয় কে অবগত করেন।

তারই সুত্র ধরে আজ শুক্রবার দুপুরে ত্রাণ ও দুর্যোগ প্রতিমন্ত্রী ডাঃ এনামুর রহমান রাজারহাট উপজেলার ঘড়িয়াল ডাঙ্গা ইউনিয়নের গতিয়াসাম ও বগুড়া পাড়া সহ বন্যাকবলিত বেশ কিছু এলাকা পরিদর্শন করেন এবং বন্যায় ক্ষতিগ্রস্ত কয়েক হাজার পরিবারের মাঝে ত্রাণসামগ্রী বিতরণ করেন।ত্রাণসামগ্রী বিতরণ কার্যক্রমের পূর্বে স্বাগত বক্তব্য রাখেন কুড়িগ্রাম জেলা আওয়ামীলীগের সভাপতি ও সাবেক এমপি আলহাজ্ব জাফর আলী ও রাজারহাট উপজেলা পরিষদের চেয়ারম্যান জাহিদ সোহরাওয়ার্দী বাপ্পী,বক্তব্যে প্রতিমন্ত্রীর দৃষ্টি আকর্ষণ করে তিস্তা নদীর ভাঙ্গনরোধে স্থায়ী সামাধানে প্রধানমন্ত্রীর হস্তক্ষেপ কামনা করেন ত্রাণ ও দুর্যোগ মন্ত্রী মহোদয়ের মাধ্যমে।কুড়িগ্রাম জেলার সাবেক এমপি জাফর আলী বলেন মাননীয় প্রধানমন্ত্রী যেন তিস্তা নদী খনন করে নদীর নাব্যতা ফিরিয়ে এনে স্রোতের গতিপথ পরিবর্তন করে দেন।তবেই নদীভাঙ্গন থেকে রক্ষা পাবে তিস্তা নদীর তীরবর্তী মানুষ।

সেই সাথে সাবেক এমপি জাফর আলী আরোও বলেন তিস্তা নদীর স্হায়ী সমাধান হলে আমরা চির ঋনী থাকবো মাননীয় প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার কাছে।উপরে আল্লাহ নিচে মাননীয় প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা ছাড়া আমাদের সাহায্য করার আর কেউ নেই।

প্রধান অতিথি প্রতিমন্ত্রী ডাঃ এনামুর রহমান তার স্বাগত বক্তব্যে তিস্তা পাড়ের নদী ভাঙ্গনের শিকার ও বন্যায় ক্ষতিগ্রস্তদের নদী শাসনের ব্যাপারে আশ্বস্ত করেন।

এসময় উপস্থিত ছিলেন দুর্যোগ ব্যবস্থাপনা ও ত্রাণ মন্ত্রণালয়ের মাননীয় সচিব মোঃমোহসীন,কুড়িগ্রাম দুই আসনের সাংসদ সদস্য আলহাজ্ব পনির উদ্দিন আহমেদ,কুড়িগ্রাম জেলা প্রশাসক মোহাম্মদ রেজাউল করিম,পুলিশ সুপার সৈয়দা জান্নাত আরা, রাজারহাট উপজেলা নির্বাহী অফিসার নুরে তাসনিম, রাজারহাট থানা অফিসার ইনচার্জ রাজু সরকার আরও উপস্থিত ছিলেন বিদ্যানন্দ ইউনিয়ন যুবলীগের সভাপতি নজরুল ইসলাম বসুনিয়া এবং প্রশাসনের উর্ধতন কর্মকর্তাবৃন্দ সহ আওয়ামীলীগের নেতৃবৃন্দ।