মঙ্গলবার, ১১ই মে, ২০২১ ইং, সকাল ৭:২৪
শিরোনাম :
বরিশালে ভাড়া বাসায় বিশ্ববিদ্যালয়ছাত্রীর মৃত্যু ঘিরে রহস্য ঘনীভূত বকশীগঞ্জে করোনায় ক্ষতিগ্রস্ত ৬৫০ পরিবারের মাঝে শাড়ি-লুঙ্গী বিতরণ পুকুর খননকালে উঠে এলো মানুষের কঙ্কাল! ফুলবাড়ীতে দরিদ্রদের মাঝে বন্ধুমহল সেচ্ছাসেবী সংগঠনের ঈদ উপহার বিতরণ গঙ্গায় ভেসে উঠছে শতাধিক মৃতদেহ, ভারতে নতুন আতঙ্ক দক্ষিণাঞ্চলের দেড় কোটি মানুষের ২৬ আইসিইউ বেড, ২ হাসপাতালে সেন্ট্রাল অক্সিজেন! জেরুজালেমে রকেট হামলা আস্থা ভোটে হেরে ক্ষমতা হারালেন নেপালের প্রধানমন্ত্রী দেবীদ্বারে বৃদ্ধ দম্পতিকে প্রকাশ্যে কুপিয়ে যখম করল ভাতিজা পানিসম্পদ প্রতিমন্ত্রীর পক্ষে অসহায়,হতদরিদ্র ও কর্মহীন মানুষের মাঝে ইফতার সামগ্রী বিতরণ

ঢাকায় ঝড়বৃষ্টি, এই মাসেই নিম্নচাপ-বন্যার শঙ্কা!

ডেস্ক রিপোর্ট  টানা দাবদাহ শেষে রাজধানী ঢাকায় শুরু হয়েছে ঝড়বৃষ্টি। রোববার (২ মে) রাত ১০টার দিকে ঝড়ো হাওয়ার সঙ্গে সঙ্গে বৃষ্টিপাতও শুরু হয়।

এর আগে আবহাওয়া অধিদফতর জানিয়েছিল, এদিন সন্ধ্যা ৬টা পরবর্তী ২৪ ঘণ্টার পূর্বাভাসে রংপুর, ময়মনসিংহ এবং সিলেট বিভাগের কিছু কিছু জায়গায় এবং রাজশাহী, ঢাকা, খুলনা, বরিশাল ও চট্টগ্রাম বিভাগের দু-এক জায়গায় অস্থায়ীভাবে দমকা বা ঝড়ো হাওয়াসহ বৃষ্টি অথবা বজ্রসহ বৃষ্টি হতে পারে। এই ২৪ ঘণ্টা পরের দুই দিনে বৃষ্টি বা বজ্রসহ বৃষ্টিপাতের প্রবণতা আছে বলেও জানিয়েছে আবহাওয়া অফিস।

আগামী এক মাসের আবহাওয়ার আগাম পরিস্থিতি তুলে ধরতে আবহাওয়া অধিদফতরে অনুষ্ঠিত এক বৈঠকে জানানো হয়, চলতি মাসে দেশের আবহাওয়ায় ব্যাপক পরিবর্তন দেখা যাবে। এ মাসে একদিকে আকস্মিক বন্যা, নিম্নচাপ, ঘূর্ণিঝড় ও শক্তিশালী কালবৈশাখী ঝড়ের আভাস আছে, আবার অন্যদিকে স্বাভাবিক অপেক্ষা কম বৃষ্টিপাত ও তীব্র দাবদাহও দেখা দিতে পারে।

বৈঠকের তথ্য জানিয়ে আবহাওয়াবিদ শ ম সাজু জানান, প্রতি মাসের শুরুতে অধিদফতরের পরিচালকের সভাপতিত্বে আবহাওয়া বিশেষজ্ঞ কমিটির বৈঠক অনুষ্ঠিত হয়। এ বৈঠক থেকেই চলতি মাসের দীর্ঘমেয়াদি আবহাওয়ার পূর্বাভাস তৈরি করা হয়। এর সাথে আগের মাসের একটি পর্যালোচনাও থাকে।

গত মাসের পর্যালোচনায় দেখা গেছে, এপ্রিল মাসে উল্লেখযোগ্য পরিবর্তন হলো সারা দেশে স্বাভাবিক অপেক্ষা ৭৯ শতাংশ বৃষ্টিপাত কম হয়েছে। চলতি মে মাসেও সারা দেশে স্বাভাবিক অপেক্ষা কিছুটা কম বৃষ্টিপাত হওয়ার সম্ভাবনা রয়েছে।

স্বাভাবিক বৃষ্টিপাত বলতে প্রত্যেক বিভাগের জন্যে মাস হিসেবে আলাদা আলাদা পরিমাণকে বোঝানো হয়। যেমন মে মাসের জন্যে রাজশাহীতে ১৯৬ মি.মি., রংপুরে ২৬১ মি.মি., ঢাকায় ২৯২ মি.মি. বরিশালে ২৬০ মি.মি., চট্টগ্রামে ৩১০ মি.মি., খুলনায় ১৭৫ মি.মি., সিলেটে ৫১০ মি.মি., ময়নসিংহে ৩৮০ মি.মি. বৃষ্টিপাতকে স্বাভাবিক বৃষ্টিপাত বোঝানো হয়েছে।

আবহাওয়ার দীর্ঘমেয়াদি পূর্বাভাসে বলা হয়েছে, এ মাসে বঙ্গোপসাগরে এক থেকে দুটি নিম্নচাপ সৃষ্টি হতে পারে। এর মধ্যে একটি ঘূর্ণিঝড়ে পরিণত হতে পারে। আর দেশের উত্তর ও মধ্য অঞ্চলে দুই থেকে তিনদিন বজ্র ও শিলাবৃষ্টিসহ মাঝারি অথবা তীব্র কালবৈশাখী ঝড় বয়ে যেতে পারে। এছাড়া দেশের অন্যান্য অঞ্চলে ৫ থেকে ৭ দিন বজ্রসহ শিলাবৃষ্টি ও হালকা থেকে মাঝারি ধরনের কালবৈশাখী ঝড় হতে পারে।

আর মে মাসে দেশের পশ্চিম অঞ্চলে একটি দাবদাহ বয়ে যেতে পারে। যার তাপমাত্রা হতে পারে ৪০ ডিগ্রি সেলসিয়াস থেকে বেশি এবং সারা দেশে মৃদু থেকে মাঝারি দাবদাহ বয়ে যেতে পারে।

নদনদীর অবস্থায় বলা হয়েছে, মে মাসে উত্তর অঞ্চল ও উত্তর পূর্ব অঞ্চলের কিছু স্থানে ভারী বৃষ্টিপাতের প্রেক্ষিতে স্বল্প মেয়াদি আকস্মিক বন্যার পরিস্থিতি তৈরি হতে পারে।

কৃষি আবহাওয়ায় বলা হয়েছে, মে মাসে দৈনিক গড় বাষ্পীভবন ৪ দশমিক ২ মি.মি. থেকে ৫ দশমিক ২৫ মি.মি. এবং গড় উজ্জ্বল সূর্যকিরণকাল ৬ দশমিক ৫ থেকে ৭ দশমিক ৫ ঘণ্টার মধ্যে থাকতে পারে।